কবিতা

স্বস্তিতে বাঁচতে চাই । এম এম আবু কালাম

স্বস্তিতে বাঁচতে চাই

এম এম আবু কালাম

আমাগো রে বাঁচতে দেন আমরা বাঁচতে চাই
আমরা আপনা গো ঐ সোনার সিংহাসন চাই না
আমরা শুধু চাই ইজ্জতের সাথে বাঁচতে
ভাঙ্গা কুঁড়েঘর ডারেই রাজপ্রসাদ ভাইবা কোনরকম দিন কাটায়।

বিশ্বাস করেন আমাগো মাছ মাংস খাওনের লোভ নাই
সামান্য মোটা চাইলের ভাত। লগে একটু আলু ভর্তা আর ডাইল হইলেই দিন পার অইয়া যায়।

ডাক্তার আপায় কয়ছে বেশী বেশী শাক, সবজি খাইতে
আগে মাঠে ঘাটে হরেক রকম শাক সবজি পাওয়া যাইতো এহন তো খোলা মাঠ ই তেমন চোখে পড়েনা!
চারিদিকে শুধু উন্নয়ন আর উন্নয়ন।

এত্ত বড় বড় দালানকোঠা আর বিশাল বিশাল পাহা রাস্তাঘাট।

এইগুলি দেইখা বুঝতাম পারি দেশ অনেক উন্নত হয়ছে, দেশের মানুষের মেলা টেহা পয়সা
তয় এইগুলান দেইখা আমার কি লাভ আমার ঘরে যে খাওন নাই।

জিনিসপত্রের যেই হারে দাম বাড়ছে আমার মজুরী তো বাড়ে নাই
বড় পোলাডারে আওশ কইরা লেহাপড়া করায়ছিলাম
ভাবছিলাম চাকরি বাকরি কইরা সংসারের হাল ধরবো
আপনেরা কইছিলেন ঘরে ঘরে চাকরি দিবেন।

আমার হইলো পোড়া কপাল চাকরি পাইতে গেলে মেলা টেহা লাগে এত্ত টেহা ও যে আমার নাই।
নাই মামা, খালু, দুলাভাই তাছাড়া নাই কোন রাজনৈতিক পরিছয়।

আমাগো জীবনডা যে কি কষ্টের হেইডা কেমনে বুঝায়তাম
আপনেরা তো উন্নয়ন ছাড়া চোখে কিছুই দেখেন না
একবার উন্নয়েনর চশমাডা খুইল্লা দেহেন আমাগো কি বেহাল দশা।

আমাগো রে বাঁচতে দেন আমরা একটু স্বস্তিতে বাঁচতে চাই।

এমাজন থেকে ক্রয় করতে এই লিংকে ক্লিক করুণ- https://amzn.to/3Myqyoz

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button